ইমারতের বুনিয়াদ নির্মাণ

উদ্দেশ্য: ইমারতের বুনিয়াদ নির্মাণ কৌশল আয়ত্ত করা।

প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি ও মালামাল:

যন্ত্রপাতি:

  1. বাসুলি
  2. কর্নি
  3. ওলন
  4. মাটাম
  5. স্পিরিট লেভেল
  6. কড়াই
  7. বালতি
  8. মগ
  9. বালি চালনি
  10. হ্যামার
  11. পেরেক
  12. রড কাটার
  13. ছেনি (কোল্ড চিজেল বা হ্যাক স’)
  14. রড বাঁকা করার জি আই পাইপ বা হ্যান্ডেল
  15. রড সোজা করার হ্যান্ডেল

মালামাল:

  1. ইট
  2. বালি
  3. সিমেন্ট
  4. পানি
  5. ফর্ম ওয়ার্ক তৈরির প্রয়োজনীয় কাঠ
  6. জি. আই. শিট
  7. এম. এস. রড
  8. ইট বা পাথরের খোয়া

কাজের ধারাবাহিক ধাপসমূহ:

  1. ওয়ার্কিং ড্রইং ভালো করে পর্যবেক্ষণ করে ড্রইং-এর মাপ অনুযায়ী ভিত্তির পরিখা খনন করতে হবে। (দৈর্ঘ্য, প্রস্থ, গভীরতা)
  2. ভিত্তিতল দুরমুজ দ্বারা শক্ত ও দৃঢ় করতে হবে।
  3. ভিত্তিতলে ব্রিক সোলিং বিছাতে হবে।
  4. (ক) ব্রিক ফুটিং-এর জন্য: গুণগত মানসম্পন্ন মালামাল ব্যবহার করে ১ : ২ : ৪ অনুপাতে কংক্রিট তৈরি করতে হবে এবং মাপ অনুযায়ী ঢালাই করতে হবে।
    • ইংলিশ বন্ডে ১ম ধাপ ইট গাঁথতে হবে। (দু-ইট উচ্চতা)
    • ইংলিশ বন্ডে ২য় ধাপ ইট গাঁথতে হবে। (দু-ইট উচ্চতা)
    • প্রস্থে ইংলিশ বন্ডে ইট গাঁথতে হবে।
    • ইট গাঁথা শেষে দুই পাশ মাটি দ্বারা ভরাট করতে হবে। (এক্ষেত্রে মাটি ও বালি একত্রে ভরাট করে পানি দিলেই কিছুটা বসে যাবে)।

(খ) কংক্রিট ফুটিং-এর ক্ষেত্রে: ড্রইং-এর ধাপ অনুযায়ী মাপমতো রড কাটতে হবে। নিচের জালিতে উভয় দিকে এবং মধ্যখানে (চিত্র দেখে) প্রয়োজন রড উল্লম্বভাবে স্থাপন করতে হবে। নিচের জালিতে উভয় দিকে ছড়ানো রড তার দিয়ে বাঁধা। খাড়া রডের চারদিকে ১৫ সে.মি. পরপর বা নির্দিষ্ট দূরত্বে রিং (স্টিরাপ) দ্বারা আটকাতে হবে। তক্তা দিয়ে ফর্ম ওয়ার্ক তৈরি করতে হবে। গুণগত মানসম্পন্ন মালামাল ব্যবহার করে ১ : ২ : ৪ অনুপাতে বা ড্রইং-এ নির্দেশ মোতাবেক অনুপাতে কংক্রিট তৈরি করতে হবে এবং মাপ অনুযায়ী ফর্ম ওয়ার্কে কংক্রিট ঢালাই করতে হবে।

৫.        ঢালাইয়ের পর কিউরিং করতে হবে।

সতর্কতা:

  1. প্রত্যেকটি মাপ সঠিকভাবে নিতে হবে।
  2. ড্রইং-এর নির্দেশনা মোতাবেক কাজ করতে হবে।
  3. কাজ শেষে যন্ত্রপাতি পরিষ্কার করে গুছিয়ে রাখতে হবে।

Add a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *